Category: Persons .

تماضر بنت عمرو بن الحارث بن الشريد

English Tumādir bint ‘Amr ibn al-Hārith ibn ash-Sharīd
اردو تماضر بنت عمرو بن حارث بن شرید
বাংলা ভাষা তুমাধির বিনত আমর ইবন হারিছ ইবন শারীদ
हिन्दी तुमाज़िर बिन्त अम्र बिन हारिस बिन शरीद
తెలుగు తుమాజిర్ బింత్ అమ్ర్ బిన్ అల్ హారిస్ బిన్ షురైద్.

الخَنْسَاء

English Al-Khansā’
اردو خنسا -رضی اللہ عنہا-
বাংলা ভাষা খানসা
हिन्दी खनसा -रज़ियल्लाहु अन्हा-
తెలుగు అల్ ఖన్సా.

تُماضر بنت عمرو بن الحارث بن الشريد الرياحية السُّلَمية، لُقبت الخنساء واشتهرت بلقبها، وهي أشهر شواعر العرب من أهل نجد، عاشت أكثر عمرها في العهد الجاهلي، واشتهرت برثاء أخويها صخر ومعاوية، وأدركت الإسلام فأسلمت، ووفدت على رسول الله صلى الله عليه وسلم مع قومها بني سليم، كان لها أربعة بنين شهدوا حرب القادسية سنة 16، فجعلت تحرضهم على الثبات حتى قتلوا جميعًا فقالت: (الحمد للَّه الذي شرفني بقتلهم)، توفيت عام 24.

English She is Tumādir bint ‘Amr ibn al-Hārith ibn ash-Sharīd ar-Rīyāhiyyah as-Sulamiyyah. She was nicknamed 'Al-Khansā’' and became well-known with that nickname. She was the most famous among the poets of Najd. She lived most of her life during the pre-Islamic era of ignorance. She gained fame because of the elegies she composed on her two brothers: Sakhr and Mu‘āwiyah. She embraced Islam and went to meet the Prophet (may Allah's peace and blessings be upon him) with her people from Banu Sulaym. She had four sons, who all witnessed the War of Al-Qādisiyyah in 16 AH. She kept urging them to remain steadfast until they were all martyred, whereupon she said: "Praise be to Allah Who honored me with their martyrdom." She died in 24 AH.
اردو تماضر بنت عمرو بن حارث بن شرید ریاحیہ سلمیہ، لقب خنسا تھا اور اپنے اسی لقب سے مشہور ہوئیں، نجد سے تعلق رکھنے والی سب سے مشہور عرب شاعرہ تھیں، عمر کا زیادہ تر حصہ جاہلی دور میں گزارا، اپنے دونوں بھائیوں صخر اور معاویہ کے مرثیہ کی وجہ سے مشہور ہوئيں۔ اسلام کا زمانہ ملا تو مسلمان ہو گئیں،اپنی قوم بنو سلیم کے ساتھ اللہ کے رسول -صلی اللہ علیہ و سلم- کے پاس پہنچیں، ان کے چار بیٹے تھے، جو سنہ 16 کو جنگ قادسیہ میں شہید ہوئے،اس موقعے پر وہ اپنے بیٹوں کو جنگ پر مسلسل ابھارتی رہیں، یہاں تک کہ جب چاروں نے جام شہادت نوش کر لیا تو انھوں نے کہا : ساری تعریف اس اللہ کی ہے جس نے مجھے چاروں بیٹوں کی شہادت کی عزت بخشی، سنہ 24 میں ان کی وفات ہوئی۔
বাংলা ভাষা তুমাধির বিনত আমর ইবন হারিছ ইবন শারীদ আর-রিয়াহিয়্যাহ আস-সুলামিয়্যাহ। তার উপনাম ছিল খানসা, তিনি তার উপনামেই প্রসিদ্ধি লাভ করেন। তিনি নজদের অধিবাসীদের মধ্যে প্রসিদ্ধ আরব কবিদের একজন ছিলেন। তিনি তার জীবনের অধিকাংশ সময় জাহেলী যুগেই পার করেছেন। তিনি তার দুইভাই সখর ও মু‘আবিয়াহর শোকগাথার কারণে প্রসিদ্ধি লাভ করেন। এরপরে তিনি ইসলাম পেয়ে ইসলাম গ্রহণ করেন। এবং আল্লাহর রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের কাছে তার স্বীয় গোত্র বনু সুলাইমের সাথে আগমণ করেন। তার চারটি পুত্রসন্তান ছিল, তারা হিজরী ১৬ সালে কাদেসিয়ার যুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন, তিনি তাদেরকে যুদ্ধের ময়দানে দৃঢ় থাকতে উদ্বুদ্ধ করছিলেন, অবশেষে তারা সকলেই শাহাদাত বরণ করেন। তখন তিনি বললেন: “ঐ আল্লাহর প্রশংসা, যিনি তাদের নিহত হওয়ার মাধ্যমে আমাকে সম্মানিত করেছেন।” তিনি হিজরী ২৪ সালে মৃত্যুবরণ করেন।
हिन्दी तुमाज़िर बिन्त अम्र बिन हारिस बिन शरीद अर-रियाहिया सुलमिया। लक़ब ख़नसा था और उसी से प्रसिद्ध हुईं। वह नज्द से संबंध रखने वाली अरब की एक सबसे प्रसिद्ध शायरा (कवयित्री) थीं। अधिकतर आयु अज्ञानता (जाहिलीयत) काल में व्यतीत की और अपने दोनों भाई सख़्र एवं मुआविया की मृत्यु पर मरसिया (शोक-गीत) कहने के कारण प्रसिद्ध हुईं। इस्लाम का संदेश मिला, तो मुसलमान हो गईं और अपनी जाति बनी सुलैम के साथ अल्लाह के रसूल -सल्लल्लाहु अलैहि व सल्लम- के पास पहुँचीं। उनके चार बेटे थे, जो सन् 16 हिजरी को क़ादसिया युद्ध में शामिल हुए, तो वह उन्हें सुदृढ़ रहकर युद्ध करने पर उभारती रहीं। अतंतः जब चारों शहीद हो गए, तो बोलीं : "सारी प्रशंसा अल्लाह की है, जिसने मुझे उनकी शहादत का गौरव प्रदान किया।" उनकी मृत्यु सन् 24 हिजरी में हुई।
తెలుగు తుమాజిర్ బింత్ అమ్ర్ బిన్ హారిస్ బిన్ షురైద్ అర్-రియాహియా సులమియా.ఖన్సా అనే బిరుదు పొంది అదే పేరుతో ప్రఖ్యాతిగాంచారు. అరేబియా ప్రాంతపు నజ్ద్'తెగకు చెందిన అత్యంత ప్రసిద్ధ కవయిత్రి ఆమె. ఆమె తన జీవితపు అధికకాలం అజ్ఞాన కాలం(జాహిలియత్) లో గడిపారు. ఆమె తన ఇద్దరు సోదరులైన సఖర్ మరియు ముఆవియా మరణంపై మరసియా(సానుభూతి గీతం) చెప్పడంతో ప్రసిద్ధి చెందారు. ఇస్లాం సందేశాన్ని అందుకున్నప్పుడు ఆమె స్వీకరించి ముస్లింగా మారారు. ఆమె తన తెగ బనూ సులైమ్ వాసులతో కలిసి అల్లాహ్ యొక్క ప్రవక్త- సల్లల్లాహు అలైహి వ సల్లం వద్దకు చేరుకుంది. ఆమెకు నలుగురు కుమారులు ఉన్నారు.వారు 16వ హిజ్రీలో ఖాదిసియా యుద్ధంలో పాల్గూన్నారు.అప్పుడు వారిని స్థైర్యంగా ఉండి వారిని పోరాడమని ప్రోత్సహిస్తూనే ఉంది. చివరికీ , నలుగురూ షహీదు అయ్యారు అమరవీరులైనప్పుడు ఆమె ఇలా చెప్పింది:(الحمد للَّه الذي شرفني بقتلهم)"అల్లాహ్ కు అనేక కృతజ్ఞతలు. ఆ నలుగురి షహాదతు ద్వారా నాకు గౌరవాన్ని ప్రసాదించాడు" ఆమె హిజ్రీ 24వ సంవత్సరంలో మరణించారు.

الاستيعاب (4/1827) وفيات الأعيان (6/34) الوافي بالوفيات (10/240) الإصابة في تمييز الصحابة (8/109) الأعلام للزركلي (2/ 86).